1. admin@agrajatrabd.news : admin :
বিজ্ঞপ্তিঃ-
জেলা-উপজেলায় সাংবাদিক নিয়োগ চলছে যোগাযোগ ০১৩ ০৯ ৩২ ৩২ ৮১
শিরোনাম
গাজীপুরে নিষিদ্ধ ঘোষিত পলিথিন ব্যাগ বিরোধী অভিযান বাসাইল মুজিব হাবিব ইসলামিয়া দাখিল মাদরাসার পক্ষ থেকে সংবর্ধংণার অনুষ্ঠান বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট গাজীপুর মহানগর শাখার নেতৃবৃন্দের পূষ্পস্তবক অর্পণ কক্সবাজার মহেশখালীর প্রধান সড়ক পুনঃ নির্মাণ কাজে অনিয়মঃ ৬৩ কোটি  টাকায় ৩৮ কিলোমিটার বিশ্বনাথে মাদ্রাসা প্রহরী হত্যা মামলায় ১ জনের ফাঁসি, ৩ জনের বেকসুর খালাস ঝালকাঠিতে ধর্ষকের পরিবার কর্তৃক হামলার শিকার ধর্ষিতা সাভারে র‍্যাব-৪ এর অভিযানে বিপুল পরিমাণ চোরাই ইলেকট্রিক তারসহ আটক ৩ নলছিটিতে তিন ছাত্রলীগ নেতা বহিষ্কার, দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগ ঝালকাঠিতে ধর্ষকের পরিবার কর্তৃক হামলার শিকার ধর্ষিতা সাংবাদিক নাঈমুর রহমান ছরোয়ার এর ২৭তম জন্মদিন আজ

রাজশাহীর রেলওয়ের ড্রেনে ভেসে যাচ্ছে টাকা!টাকা কুড়াচ্ছে এলাকার সাধারণ মানুষ।

  • Update Time : শনিবার, ২২ আগস্ট, ২০২০
  • ১৫৩ বার পড়া হয়েছে

রাজশাহী প্রতিনিধিঃ-

শিবলী সরকার (নবু) রাজশাহীর রেলওয়ে অফিসার্স মেস ভবনের সামনে বড়ো ড্রানে ভেসে যাচ্ছে টাকার নোট কুড়াচ্ছে অনেক মানুষ। সবার চোখ পড়েছে ড্রেনের দিকে। ভিড় ঠেলে সামনে গিয়ে দেখা যায়, কিছু মানুষ কি যেন খুব খোঁজাখুঁজি করছেন। কেউ একজন পেয়েও গেলেন প্রত্যাশিত বস্তুটি। তার হাতে ৫০০ টাকার নোট। কি আশ্চর্য, ড্রেনে ভাসছে টাকা!

এ খবর ছড়িয়ে পড়লে আরো লোকসমাগম বেড়ে যায়। যারা এতোক্ষণ ড্রেনে টাকার কথা শুনে দাঁড়িয়েছিলেন। তখন নিজেরাও নেমে গেলেন, সেই টাকা কুড়াতে। কেউ দু’একটি নোট পেয়েছেন৷ আবার কেউ টাকা কুড়ানোর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন।

টাকাগুলো রাজশাহী সড়ক পরিবহন গ্রুপের। সেগুলো পুরনো কাগজপত্রের ভেতর ছিল। নগরীর শিরোইল এলাকায় সড়ক পরিবহন গ্রুপের কার্যালয়। ২২ আগস্ট শনিবার দুপুরে সেখান থেকেই কাগজের সঙ্গে খেয়াল না করে টাকাগুলোও ফেলে দেয়া হয়েছিল। তবে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে খবর ছড়িয়ে পড়ে, এগুলো দুর্নীতি করে জমানো টাকা। বলেও ধারণা করা হচ্ছে তাই ভয়ে ড্রেনে ফেলে দেয়া হয়েছে।

এ খবর শুনে পুলিশ এবং গোয়েন্দা সংস্থার সদস্যরাও ড্রেনের কাছে ছুটে যান। পরে তারা টাকার রহস্য খুঁজে পান। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ড্রেনে এক হাজার, ৫০০, ১০০, ২০, ১০ এবং ৫ টাকার নোট পাওয়া গেছে। ড্রানে টাকা ভাসতে দেখে প্রথমে একজন এবং পরে অনেক মানুষ নেমে পড়েন ড্রেনে।

টুলু নামক একজন ব্যক্তি সেখানে ভাংড়ি বিক্রেতা তার কুড়ানো টাকাগুলো রেখেছিলেন পকেটেই। তিনি জানান, টাকাগুলো অফিসার্স মেসের পশ্চিম পাশ থেকেই পূর্ব দিকে চলে যাচ্ছিল। ড্রেনে ভাসতে দেখে তিনি নেমে পড়েন। এরপর আসলাম নামের আরেকজন জানান, তিনি এক হাজার ও ৫০০ টাকার নোট পেয়েছেন।

মহানগরীর বোয়ালিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নিবারণ চন্দ্র বর্মন জানান, খবর পেয়ে সেখানে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। প্রথমে টাকা কোথা থেকে এলো তা নিয়ে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। পরে এর রহস্যের উদ্ঘাটনের খবর পাওয়া যায়।

রাজশাহী সড়ক পরিবহন গ্রুপের সাধারণ সম্পাদক মতিউল হক টিটো বলেন, আমরা খুবই বিব্রতকর অবস্থায় পড়ে গেছি। ভাবতেই পারিনি পুরনো কাগজের ভেতর টাকা থাকতে পারে। তিনি বলেন, কাগজগুলো ২০১০ সাল আগের। পঁচে যাওয়া কাগজপত্র। আর পুরানো কাগজপত্রের ভেতরে টাকা ছিল আমার ভাবতেই পারিনি। পঁচে যাওয়া কাগজপত্র ড্রেনে ফেলে দেয়া হয়। পরে ড্রেনে টাকা পাওয়ার খবর শুনে আমরাও সেখানে যাই। তারপর ঘটনা দেখি। তিনি বলেন, সব মিলিয়ে দুই-তিন হাজার টাকা থাকতে পারে। কিন্তু গুজব ছড়িয়ে পড়েছে লাখ লাখ টাকা ড্রানে ভাসছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন

বাংলাদেশে করোনা ভাইরাস

সর্বমোট

আক্রান্ত
সুস্থ
মৃত্যু
সূত্র: আইইডিসিআর

সর্বশেষ

আক্রান্ত
সুস্থ
মৃত্যু
স্পন্সর: একতা হোস্ট
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

প্রযুক্তি সহায়তায় ইন্টেল ওয়েব